রবিবার, ২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১০ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

হাজীগঞ্জে প্রতিবন্ধী ভাতার কার্ডের দ্বন্ধে যুবক হত্যা,তরুণলীগ নেতা আটক

বিশেষ প্রতিবেদক: চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে প্রতিবন্ধী ভাতার কার্ডের দ্বন্ধে দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী নুরুল ইসলাম ওরফে নুরু (২৫) নামের এক যুবককে হত্যার অভিযোগে ইউনিয়ন তরুণ লীগের সভাপতি কাউসার হামিদ নামের একজনকে আটক করেছে পুলিশ হাজীগঞ্জ থানা পুলিশ।মঙ্গলবার (২৮ মে ) ভোরে উপজেলার ৬ নম্বর বড়কুল পূর্ব ইউনিয়নের এন্নাতলী গ্রামের কৃষি জমির মাঠ থেকে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।

নুরু উপজেলার বড়কুল পূর্ব ইউনিয়নের এন্নাতলি গ্রামের পাটওয়ারী বাড়ির আবুল বাসার পাটওয়ারীর ছোট ছেলে। আটককৃত কাউসার এন্নাতলী মিজি বাড়ির মৃত আতিকুর রহমানের ছেলে।

নুরুর বাবার অভিযোগ, তার ছেলেকে হত্যা করা হয়েছে। এ বিষয়ে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে বলে হাজীগঞ্জ থানা পুলিশ জানায়।

পুলিশ ও স্থানীয়দের সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার সকালে ওই গ্রামের কৃষি জমির মাঠ থেকে নুরুর লাশ দেখতে পায় স্থানীয়রা। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। আটককৃত কাউসারের সাথে প্রতিবন্ধী নূরুর প্রতিবন্ধী কার্ড বিতরণসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে বিরোধ ছিল বলে স্থানীয়রা জানায়। নিহতের বাবা আবুল বাসার জানান, আমিসহ আমার দুই ছেলে ও এক মেয়ে দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী। প্রতিবন্ধী ভাতার কার্ডের জন্য আমি ও আমার ছেলেসহ এলাকার অনেকে তরুণ লীগ নেতা কাউসারকে টাকা দিয়েছি। কিন্তু গত এক বছরে ভাতার কার্ড পাইনি। এ বিষয়ে আমার ছেলে প্রতিবাদ করেছে। যার কারণে তাকে অসংখ্যবার হত্যার হুমকি দিয়েছে কাউসার।

হাজীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর হোসেন ক্রাইম রিপোর্টকে জানান ,নিহতের শরীরে আঘাতের কোনো চিহৃ নেই। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর বিষয়টি জানা যাবে। এ বিষয়ে নুরুর পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা দায়েরের প্রস্ততি চলছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (হাজীগঞ্জ সার্কেল) আফজাল হোসেন জানান, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আমরা কাউসার নামের একজনকে আটক করেছি।

এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কাউছারকে ছাড়িয়ে নিতে বিভিন্ন মহলের তদবির অব্যাহত রয়েছে ।

Comments are closed.

More News Of This Category